পরবর্তী আমীর ও কমিটি নবায়নে রবিবার হেফাজতে ইসলামের কাউন্সিল

জুলফিকার জাহিদ।।

আল্লামা শাহ আহমদ শফী রহ.-এরপরে হেফাজতে ইসলামের পরবর্তী আমীর নির্ধারণ ও সংগঠনটির কমিটি নবায়ন করতে হাটহাজারী মাদরাসায় কাউন্সিল বসছে আগামী ১৫ নভেম্বর (রবিবার)। সংগঠনটির একাধিক দায়িত্বশীল ইসলাম টাইমসকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

বিজ্ঞাপন

সংগঠনের দায়িত্বশীলরা কমিটি নবায়ন ও পরবর্তী আমির নির্ধারণে সুনির্দিষ্ট ও নিয়মতান্ত্রিক প্রক্রিয়ায় কাজ করে যাচ্ছেন বলে ইসলাম টাইসকে জানিয়েছেন হেফাজতে ইসলাম ঢাকা মহানগর সাধারণ সম্পাদক মাওলানা মঞ্জুরুল ইসলাম আফেন্দী।

আগামী রবিবার সকাল ১০টা থেকে হাটহাজারী মাদরাসায় অনুষ্ঠানিক কার্যক্রম শুরু হওয়ার কথা রয়েছে বলে জানিয়েছেন তিনি।

হেফাজতের বর্তমান সিনিয়র নায়েবে আমির মুহিব্বুল্লাহ বাবুনগরীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত হবে আমির নির্ধারণ ও কমিটি নবায়ন মজলিস। এতে অংশ নেবেন সারাদেশ থেকে আসা সংগঠনের দায়িত্বে থাকা প্রায় তিন শতাধিক আলেম।

২০১০ সালে যাত্রা শুরুর পরে বাংলাদেশে ইসলাম বিরোধী বিভিন্ন ইস্যুতে জনসাধারণের ধর্মীয় আবেগের সাথে জড়িত বিষয়গুলোতে শক্ত অবস্থান নিতে দেখা গেছে সংগঠনটিকে। তাই হেফাজতে ইসলামের কমিটি নবায়ন ও পরবর্তী আমীর নির্ধারণের বিষয়টিকে নিয়ে বাড়তি আগ্রহ ও উচ্ছাস দেখা গেছে সামাজিক মাধ্যমগুলোতে। অনেকেই নিজের পছন্দের ব্যক্তিকে দেখতে চান হেফাজতের নতুন পদে।

হেফাজতে ইসলামের নতুন আমীর হিসেবে সাম্ভব্য বেশ কয়েকজন মুরব্বীর নাম জানা গেছে ইতোমধ্যে। যাদের মধ্যে সংগঠনটির বর্তমান মহাসচিব মাওলানা জুনায়েদ বাবুনগরীর নাম রয়েছে শীর্ষে।

এছাড়া জামিয়া মাদানিয়া বারিধারা মাদরাসার প্রিন্সিপাল মাওলানা নূর হোসাইন কাসেমী, ঢাকার খিলগাঁও মাখজানুল উলুম মাদরাসার মাওলানা নুরুল ইসলাম জিহাদী, ফটিকছড়ির জামিয়া উবাইদিয়া নানুপুর মাদরাসার পরিচালক মাওলানা সালাহউদ্দিন নানুপুরী, ব্রাহ্মণবাড়িয়ার দারুল আরকাম মাদরাসার প্রিন্সিপাল মাওলানা সাজিদুর রহমান ও ঢাকার জামিয়া রাহমানিয়া আরাবিয়ার সিনিয়র মুহাদ্দিস মাওলানা মামুনুল হকের নাম আলোচনায় রয়েছে বলে হেফাজতের একাধিক নেতাকর্মী জানিয়েছেন।

তবে সব জল্পনা-কল্পনা শেষে ১৫ নভেম্বর (বরিবার) জানা যাবে কে হচ্ছেন হেফাজতে ইসলামের নতুন আমীর ও কী ধরণের পরিবর্তন আসছে সংগঠনটিতে।