ফ্রান্স ও ইউরোপের বর্ণবাদীরা মুক্তচিন্তার নামে অন্যদের অধিকার লঙ্ঘন করছে: তুরস্ক

ইসলাম টাইমস ডেস্ক: ফ্রান্সের ‘শার্লি এবদো’ পত্রিকায় আল্লাহর নবী হজরত মুহাম্মাদ (সা.)-কে নিয়ে ব্যঙ্গাত্মক কার্টুন প্রকাশের তীব্র নিন্দা জানিয়েছে তুরস্ক। তুরস্ক বলেছে, ফ্রান্সসহ ইউরোপের ফ্যাসিস্ট ও বর্ণবাদী গোষ্ঠীগুলো মুক্তচিন্তার কথা বলে অন্যদের অধিকার লঙ্ঘন করছে, ইসলামভীতি ছড়িয়ে দিচ্ছে এবং বিদ্বেষ উসকে দিচ্ছে।

তুর্কি পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র হামি একসয় বলেছেন, ‘শার্লি এবদো’ ম্যাগাজিনের উসকানিমূলক পদক্ষেপের বিষয়ে ফরাসি প্রেসিডেন্ট এমানুয়েল ম্যাক্রন যে ব্যাখ্যা দিচ্ছেন তা পুরোপুরি অগ্রহণযোগ্য। তুর্কি পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের বিবৃতিতে আরও বলা হয়েছে, গণমাধ্যম ও বাক স্বাধীনতার কথা বলে মুসলমানদের প্রতি এ ধরণের অবমাননাকে ব্যাখ্যা করা যাবে না।

বিজ্ঞাপন

মঙ্গলবার বিশ্ব শান্তির দূত মহানবী হজরত মুহাম্মাদ (সা.)-কে নিয়ে আবারও ব্যঙ্গাত্মক কার্টুন প্রকাশ করেছে বিতর্কিত ফরাসি ম্যাগাজিন শার্লি এবদো। হযরত মুহাম্মদ (সা.)-কে নিয়ে ২০১৫ সালে যে কার্টুনগুলো প্রকাশ করেছিল সেগুলোই আবার প্রকাশ করেছে তারা।

আরো পড়ুন: শার্লি হেবদোর ধৃষ্টতায় কড়া প্রতিবাদ জানালো পাকিস্তান

বিভিন্ন সূত্র জানিয়েছে, ম্যাগাজিন শার্লি এবদো’র সবশেষ সংস্করণের প্রচ্ছদে হযরত মুহাম্মদ (সা.)-কে ব্যঙ্গ করে আঁকা ১২টি কার্টুন ছাপা হয়েছে।

এই ব্যঙ্গাত্মক কার্টুনগুলো ২০০৫ সালে প্রথম প্রকাশ করেছিল ডেনমার্কের একটি পত্রিকা। এরপর কয়েক বার শার্লি এবদো বিশ্ব মানবতার মুক্তির দূত মহামানব হজরত মুহাম্মাদ (সা.)-কে নিয়ে ব্যঙ্গাত্মক কার্টুন ছাপায়।

২০১৫ সালে মহানবীকে নিয়ে ব্যঙ্গাত্মক কার্টুন প্রকাশের পর বিশ্বব্যাপী ব্যাপক প্রতিবাদ শুরু হয়। সারা বিশ্বের মুসলমানেরা বিক্ষোভ করেন। পার্সটুডে

আরো পড়ুন: পাশ্চাত্যে কোরআন পোড়ানো ও নবীর অবমাননা: মৌচাকে ঢিল ছুঁড়ে কামড় খাবেন না