টেকনাফে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ ৪ জন নিহত

18

ইসলাম টাইমস ডেস্ক: কক্সবাজার জেলার টেকনাফে পুলিশের সঙ্গে মাদক চোরাকারবারি ও ডাকাত দলের পৃথক গুলিবিনিময়ের ঘটনা ঘটেছে। এতে তিনজন ডাকাত ও এক মাদক চোরাকারবারি নিহত হয়েছেন। টেকনাফ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) প্রদীপ কুমার দাশ এসব তথ্য জানিয়েছেন।

এসময় ঘটনাস্থল থেকে সাতটি দেশীয় তৈরি অস্ত্র, পাঁচটি কিরিচ ও ২৫ রাউন্ড গুলি উদ্ধার করা হয়।

আজ (৩ আগস্ট) ভোররাত সাড়ে তিনটায় উপজেলার নুরুল্লার ঘোনা নামক পাহাড়ি এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন, টেকনাফের রোহিঙ্গা ডাকাত সর্দার আব্দুল হাকিমের সহযোগী মো. জুনায়েদ, মো. আইয়ুব ও মেহেদী এবং মাদারীপুরের কালকিনি এলাকার মৃত জহিরুল ইসলামের ছেলে মাদক চোরাকারবারি ইমরান মোল্লা।

ওসি প্রদীপ কুমার আরও জানান, ডাকাতির প্রস্তুতি নিচ্ছে একদল ডাকাত-এমন গোপন সংবাদের ভিত্তিতে অভিযানে যায় পুলিশ। পুলিশের অবস্থান টের পেয়ে ডাকাতরা গুলি চালায়। আত্মরক্ষার্থে পুলিশও পাল্টা গুলি চালায়। পরে ঘটনাস্থল থেকে এসব অস্ত্র ও গুলিসহ তিন ডাকাতের মৃতদেহ পাওয়া যায়।

প্রদীপ কুমার আরও জানান, অপর বন্দুকযুদ্ধটি হয় কক্সবাজার-টেকনাফ মেরিন ড্রাইভ সড়কের পাশে বাহারছড়ার দরগাহছড়া এলাকায়। এতে মাদক চোরাকারবারি ইমরান মোল্লা নিহত হন।

পুলিশ নিহত সকলের মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য কক্সবাজার জেলা সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে। এ দুটি ঘটনায় মামলার প্রস্তুতি চলছে বলেও জানিয়েছেন তিনি।