পর্দা নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্যের নিন্দায় যা বললেন আলেমগণ

218

ইসলাম টাইমস ডেস্ক: সম্প্রতি পর্দা নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর দেয়া বক্তব্য “হাত মোজা, পা মোজা, নাক-চোখ ঢেকে, একেবারে, এটা কী? জীবন্ত ট্যান্ট (তাবু) হয়ে ঘুরে বেড়ানো; এর তো কোনো মানে হয় না।” এর তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন দেশের বিভিন্ন পর্যায়ের দায়িত্বশীল আলেমগণ।

বাংলাদেশ খেলাফত আন্দোলনের আমীর আল্লামা আতাউল্লাহ হাফেজ্জী বলেন, পর্দানশীন নারীদেরকে তুচ্ছ-তাচ্ছিল্য ও হেয় প্রতিপন্ন করে প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্য গণমানুষের হৃদয়কে ক্ষত-বিক্ষত করেছে। ইভটিজিং, ধর্ষণ ও নারী নির্যাতন বন্ধে শালীন পোষাকের প্রতি উদ্বুদ্ধ না করে খাছ পর্দানশীন নারীদের মোজা ও নেকাব নিয়ে এই কটুক্তি দেশকে আরো অস্থিতিশীল পরিস্থিতির দিকে ঠেলে দেবে। ইসলামের পক্ষে ইতিপূর্বে প্রদত্ত তার বক্তব্য ও কাজগুলো এমনকি পবিত্র রমজানে উমরাকালে তার বোরকা ও হিজাব পরিধান জাতির কাছে এখন প্রশ্নবিদ্ধ হয়ে দাড়িয়েছে। পর্দানশীন নারীদেরকে তুচ্ছ-তাচ্ছিল্য মূলক বক্তব্য প্রত্যাহার করার জন্য প্রধানমন্ত্রীর প্রতি তিনি আহবান জানান।

আজ (১১ জুন) সকালে রাজধানীর কামরাঙ্গীরচরে এক আলোচনা সভায় সভাপতির বক্তব্যে এসব কথা বলেন।

এক বিবৃতিতে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ-এর আমীর মুফতী সৈয়দ মোহাম্মদ রেজাউল করীম পীর সাহেব চরমোনাই বলেন, শরীয়তের অন্যতম বিধান পর্দা। হাত-পা ও মুখ ঢেকে রাখা খাছ পর্দানশীন নারীদের পোষাক। প্রধানমন্ত্রীর মত একজন জাতীয় অভিভাবক হিসেবে এধরণের বক্তব্য মানায় না। তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রীর কাছ থেকে জাতি আরো দায়িত্বশীল বক্তব্য কামনা করে।