কাশ্মীরের কাঠুয়ায় শিশু ধর্ষণ মামলায় ৬ জনের কারাদণ্ড

32

ইসলাম টাইমস ডেস্ক: ভারতের জম্মু ও কাশ্মীর রাজ্যের কাঠুয়ায় আট বছর বয়সী এক শিশুকে গণধর্ষণ, নির্যাতন ও খুনের দায়ে দোষী ছয়জনের তিনজনকে যাবজ্জীবন আর তিনজনকে ৫ বছরের কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে। খবর আনন্দ বাজার

এক সরকারি কর্মকর্তা, চার পুলিশসহ আট আসামির মধ্যে সোমবার ৬ জনকে দোষী সাব্যস্ত করেন আদালত।

গত বছরের ১০ জানুয়ারি যাযাবর মুসলিম সম্প্রদায়ের ওই শিশুটিকে অপহরণ করা হয়েছিল। তাকে কাঠুয়ার একটি মন্দিরে আটকে রেখে মাদক খাইয়ে কয়েকদিন ধরে ধর্ষণ করা হয়।

এ সময় তাকে কিছু খেতেও দেয়া হয়নি। ১৭ জানুয়ারি জঙ্গল থেকে ওই শিশুর ক্ষতবিক্ষত লাশ উদ্ধার করে পুলিশ।

এ ঘটনার মূল হোতা সাবেক সরকারি কর্মকর্তা সঞ্জি রাম, তার ছেলের বন্ধু পারভেশ কুমার ও পুলিশ দীপক খাজুরিয়াকে যাবজ্জীবন দেয়া হয়েছে। আর তিন পুলিশ কর্মকর্তাকে ৫ বছরের কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে। সাক্ষ্য-প্রমাণের অভাবে সঞ্জির ছেলেকে খালাস দিয়েছেন আদালত। এনটিভি

অর্থের অভাবে আট বছরের মেয়ে আসিফার ধর্ষণ ও হত্যা মামলার রায় শুনতে যেতে পারেনি তার পরিবার।

মামলার রায় যখন বের হয়, তখন কাশ্মীরের কাঠুয়া উপত্যকায় ভেড়া ও ছাগল চরাচ্ছিল আসিফার পরিবার। তারা জানেও না যে ওই দিন মামলার রায় দেওয়া হয়েছে।

শেষমেশ আসিফার মা যখন জানতে পারেন তার মেয়েকে ধর্ষণ ও হত্যা মামলায় ছয়জনকে সাজা দেয়া হয়েছে, কান্নায় ভেঙে পড়ে তিনি জানান, মামলার রায় শুনতে পাঞ্জাবের পাঠানকোট শহরে যাওয়ার মতো অর্থসংস্থান তাঁদের নেই। কিন্তু রায় শুনে আল্লাহর দরবারে শুকরিয়া জানান তিনি।