প্রাচীন মসজিদকে নাইটক্লাবে পরিণত করলো ইসরাইল!

351

আবরার আবদুল্লাহ ।।

ফিলিস্তিনের প্রচীন আল আহমার মসজিদকে নাইটক্লাব ও বারে পরিণত করেছে ইহুদি রাষ্ট্র ইসরাইল। মসজিদের আঙ্গিনায় একটি হলঘরও তৈরি করা হয়েছে।

ইসরাইলের আল সাফেদ নামক স্থানে অবস্থিত মসজিদটি ১৯৪৮ সালে ইসরাইলি বাহিনী দখল করে নেয়। দখলের পর মসজিদটি কিছুদিন একটি ইহুদি স্কুল হিসেবে ব্যবহৃত হয়। এরপর ক্ষমতাসীন দল লিকুট পার্টির নির্বাচনী কার্যালয়ে পরিণত করা হয়। সর্বশেষ মসজিদটিকে নাইটক্লাবে পরিণত করলো দখলদার রাষ্ট্র ইসরাইল।

তবে মসজিদ আল আহমারের নাম পরিবর্তন করে কী নির্ধারণ করা হয়েছে তা নিয়ে ভিন্ন ভিন্ন তথ্য পাওয়া যাচ্ছে। কেউ বলছে, খান আল আহমার আবার কেউ বলছে, রেড হাউজ নামকরণ করা হয়েছে।

সাফেদ এন্ড তিবারিয়াজ ইসলামিক এন্ডোমেন্ট-এর সেক্রেটারি জেনারেল খায়ের তাবারি এই সিদ্ধান্তের প্রতিবাদ জানিয়ে বলেছেন, আমরা এই সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে আদালতে মামলা করেছি। যেন আদালত এই সিদ্ধান্ত বাতিল করেন এবং তা মুসলিমদের হাতে তুলে দেন। আমরা মসজিদের মালিকানা সংক্রান্ত নথিপত্র আদালতে জমা দিয়েছি।

তিনি বলেন, আল্লাহর ঘর হওয়ার পাশাপাশি আল আহরাম মসজিদটির ঐতিহাসিক ও স্থাপত্যশিল্পের মূল্যও কম নয়।

মুসলিমরা এই ঘটনার প্রতিবাদ জানাতে একত্র হলে তাদের উপর ইহুদি সন্ত্রাসীরা হামলা করে।

মসজিদের দেয়ালে স্থাপিত শিলালিপি অনুযায়ী মসজিদটি ১২৭৬ খ্রিস্টাব্দে নির্মিত। মামলুক সুলতান আদ-দাহের আল আহমার মসজিদটি নির্মান করেন।

সূত্র : মিডলইস্ট মনিটর ও গালফ নিউজ